Home / সংবাদ / মেয়ের পোশাক ও মেকআপ নিয়ে কটাক্ষ! ক্ষে’পে গিয়ে মুখ খুললেন কাজল!
image: google

মেয়ের পোশাক ও মেকআপ নিয়ে কটাক্ষ! ক্ষে’পে গিয়ে মুখ খুললেন কাজল!

মেয়ের পোশাক ও মেকআপ নিয়ে কটাক্ষ! ক্ষে’পে গিয়ে মুখ খুললেন কাজল! – দীপাবলি পার্টি হোক কিংবা বিমানবন্দর, নেটিজেনদের কটাক্ষের মুখে প্রায়শই পড়তে হয় অজয়-কাজলের মেয়ে নাইশাকে। দীপাবলি পার্টিতে হাজির হয়ে নাইশা কেন বেশি মেকআপ ক’রেছেন, তা নিয়েও প্রশ্ন তুলতে শুরু করেন অনেকে। আবার কখনও বাবার স’ঙ্গে মন্দিরে হাজির হয়ে, কটাক্ষের মুখে পড়েন নাইশা। মেয়েকে নিয়ে

স’মালোচনা, কটাক্ষ যা-ই হোক না কেন, এ বিষয়ে সব সময়ই চুপ থেকেছেন অজয় দেবগণ এবং কাজল। স’ম্প্রতি বিষয়টি নিয়ে মুখ খু’লে ছেন তারা।কাজল বলেন, তার ছেলে যুগ এবং মেয়ে নাইশাকে নিয়ে কটাক্ষ বা স’মালোচনা যাই হোক তাতে কিছু যায় আসে না। বর্তমানে

সোশ্যাল মিডিয়ার দৌলতে ছোট ছোট ছেলেমেয়েদের নিয়ে কটাক্ষ করা হয়। পোশাক থেকে শুরু করে, ব্যবহার, চলাফেরা- সব কিছুতে তারকা সন্তানরা কোন সময়ই ক্যামেরা আড়াল ক’রতে পারেন না।তারকা সন্তান না হয়ে যুগ, নাইশা যদি আর পাঁচজন সাধারণ পরিবারের সদস্য

হতেন, তাহলে এসব তাদের সহ্য ক’রতে হত না বলেও মন্তব্য করেন কাজল। সেই কারণেই নাইশাকে নিয়ে কটাক্ষ বা স’মালোচনা, কোনও কিছুই তার গায়ে লাগে না বলে মন্তব্য করেন কাজল। সূত্র : জি নিউজ।

এক শরীরে দুটো মাথা,চারটে হাত, অবলীলায় চালাচ্ছে স্কুটি! সোস্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল সেই বিস্ময়কর ভিডিও
মানুষের অসাধ্য কিছুই নেই, তা আবারো প্রমাণ হয়ে যায় সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করা কিছু ভিডিওতে।এই রকমই একটি ভিডিও সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় দেখা যাচ্ছে যা দেখে যে কেউ হতবাক হয়ে যেতে পারে। ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে একটি পেট্রোল পাম্প, যেখানে স্কুটি নিয়ে

তেল ভরতে এসেছেন জনৈক এক ব্যক্তি, সরি বলা ভালো দুই ব্যক্তি। আমরা অনেক সময় যমজ সন্তানের কথা শুনে থাকি। কিন্তু যে যমজ সন্তান একই দেহে দুটি প্রাণ নিয়ে জন্মগ্রহণ করেন, তাদের শারীরিক সমস্যা থাকে।এই দুটি মানুষের একই শরীর নিয়ে জন্মগ্রহণ করার ঘটনাটা খুবই বিরল দেখা যায়।বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই জন্মগ্রহণের কয়েক মাসের মধ্যেই মারা যায় সেই শিশু।কিন্তু কোন কোন সময় আবার ভগবানের আশীর্বাদে বহু দিন বেচে থাকেন একই শরীর নিয়ে জন্মগ্রহণ করা দুই ব্যক্তি। এ রকমই থাকে শরীরে দুটি ব্যক্তি স্কুটি চালিয়ে যাবার ভিডিও

সম্প্রতি সোশ্যাল-মিডিয়ায়-ভাইরাল হয়েছে। নিয়েপেট্রোলপাম্পে ব্যক্তি দুটি আসার পর সেখানে দাঁড়িয়ে থাকা মানুষেরা তাদের দেখে হতবাক হয়ে যায়। কিভাবে এই শরীর নিয়ে স্কুটি চালানো সম্ভব, তা নিয়ে চিন্তায় পড়ে যায় অনেকেই। ভিডিওটি দেখলে বোঝা যাবে যে, ব্যক্তি রুটি যে মানুষটি অপরদিকে রয়েছেন তিনি স্কুটি স্টার্ট দিচ্ছেন, এবং যে ব্যক্তি তলার দিকে রয়েছেন তিনি হ্যান্ডেল চালিয়ে স্কুটি দিকে নিয়ে যাচ্ছেন। এভাবে স্কুটি চালানোর জন্য হয়তো তাদের বহু পরিশ্রম করতে হয়েছে। তবে জীবনে অন্য কারোর ওপর নির্ভরশীল না হয়ে কঠোর পরিশ্রমের

দ্বারা নিজের কাজ নিজে করে ফেলার যে আনন্দ, তা হয়তো মুখে প্রকাশ করা যাবে না।আমরা সুস্থ স্বাভাবিক জীবন প্রিয় সব সময় ভগবানের কাছে নালিশ জানাচ্ছি যে আমরা সুখী নয়। কিন্তু এইসব মানুষেরা অর্ধজীবন পেয়েও কিভাবে তাতেই সুখী থাকা যায় তা আবার আমাদের শিখিয়ে দেয়। ভিডিওটি সোশ্যাল-মিডিয়ায়-ভাইরাল হতেই এই দুই ব্যক্তির সুস্থ স্বাভাবিক জীবনের জন্য প্রার্থনা করেছে নেটিজেনরা।

Check Also

আস্ত সাপকে গিলে খাচ্ছে সবুজ রঙের একটি ব্যাঙ! ঝড়ের গতিতে ভাই’রাল

আস্ত সাপকে গিলে খাচ্ছে সবুজ রঙের একটি ব্যাঙ! ঝড়ের গতিতে ভাই’রাল – সাপের এক অন্যতম ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x