Tuesday , June 22 2021
Home / বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি / বিদ্যুৎ বিল কমানোর সহজ পদ্ধতি…বাড়তি বিলের বোঝা ঝেড়ে ফেলুন…

বিদ্যুৎ বিল কমানোর সহজ পদ্ধতি…বাড়তি বিলের বোঝা ঝেড়ে ফেলুন…

বিদ্যুৎ বিল কমানোর সহজ পদ্ধতি…বাড়তি বিলের বোঝা ঝেড়ে ফেলুন… – চলতি বছর করোনা আবহে এমনিতেই গৃহবন্দি দেশবাসী। করোনা কাঁটায় ঘর থেকে বেরোতে ভয় পাচ্ছে সকলে। আর সারাদিন ঘরে থাকার জেরে চলছে লাইট ফ্যান টিভি এসি। ফলে চড়চড়িয়ে বাড়ছে

বিদ্যুতের বিল। কিন্তু জানেন কি বিদ্যুতের বিলও কমানোর উপায় আছে। যদি বিদ্যুতের বিল কমাতে চান সে ক্ষেত্রে মেনে চলতে হবে কয়েকটি নীতি।অতিরিক্ত বিদ্যুতের বিল দেখলে অনেকেরই মাথায় আকাশ ভেঙ্গে পড়ার জোগাড় হয়। সারাদিন ঘরে থাকলে বিদ্যুতের বিল তো একটু

বাড়বে তা স্বাভাবিক। তবে, যদি এই উপায়গুলি আপনি মেনে চলেন তবে কমতে পারে আপনার বিদ্যুতের বিল। আসুন এবার দেখে নেওয়া যাক ঠিক কি উপায়ে কমতে পারে বিদ্যুতের বিল। প্রথমত যে ঘর থেকে বেরিয়ে যাবেন তখনই আলা-পাখা সব নিভিয়ে দিন৷ অযথা এই ইলেক্ট্রিক

কানেকশন চলতে থাকলে বিল বেশি আসবে ৷ আপনার বাড়িতে কি পুরনো বাল্ব আছে? থাকলে অবিলম্বে তা বাতিল করে এনার্জি বাঁচায় এমন আলো ব্যবহার করে বিদ্যুত বিলে বাঁচান।ফ্রিজের তাপমাত্রা ২ ডিগ্রিতে রাখুন, আর ফ্রিজারের তাপমাত্রা রাখুন-১৮ ডিগ্রি৷ খাবারও ভাল থাকবে

আর বিলও কম আসবে। করোনা অবহে বেশিরভাগ অফিসই এখন হয়ে গিয়েছে ওয়ার্ক ফ্রম হোম। ফলে সেক্ষেত্রে ল্যাপটপ বা ডেক্সটপ চলছে কাজ। তবে, যখন উঠছেন বা রেস্ট নিচ্ছেন, তখন স্লিপ মোডে রাখতে পারেন কম্পিউটার এতেও কিছুটা হলে বাঁচবে বিল। অনেকেই কাপড়

জামা ওয়াশিং মেশিনে কাচেন। কিন্তু আপনারা জানেন কি ওয়াশিং মেশিন ব্যবহারে অনেক বেশি বিল আসে৷ তাই খরচ কমাতে চাইলে অল্প জামা কাপড় হাতে কাচতে পারেন এবং ড্রায়ার ব্যবহারের বদলে বারান্দা বা ছাদে কাপড় শুকতো দিন। গরম বা ভ্যাপসা আবহাওয়ায় এসি

চালালে বিল বেশি আসে তাই অপ্রয়োজনে এসি না চালিয়ে ফ্যান চালাতে পারেন৷ নিয়মিত এসির ফিল্টার পরিষ্কার না হলেও বিল বেশি আসে। ইস্ত্রি মেশিন ব্যবহারের ক্ষেত্রে একবার মেশিন গরম হলে সেটা বন্ধ করে ইস্ত্রি করুন জামা কাপড়৷ আবার ঠান্ডা হলে সুইচ অন করুন এতে সাশ্রয় হবে বিল।মাইক্রোওয়েভে ডিফ্রস্ট করলেও কিন্তু বিদ্যুতের বিল বেশি আসে৷

About Moni Sen

Check Also

ফেসবুক ভেরিফায়েড করবেন যেভাবে

ফেসবুক ভেরিফায়েড করবেন যেভাবে

ফেসবুক ভেরিফায়েড করবেন যেভাবে- খুব সহজেই যদি ফেসবুকে আপনার নামের পাশে নীল বৃত্তাকারে সাদা টিক ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *