Thursday , December 3 2020
Home / রুপচর্চা / চুল পড়া নিয়ে আর দু’শ্চিন্তা নয়! পেয়ার পাতায় কমাবে চুল পড়া
image: google

চুল পড়া নিয়ে আর দু’শ্চিন্তা নয়! পেয়ার পাতায় কমাবে চুল পড়া

চুল পড়া নিয়ে আর দু’শ্চিন্তা নয়! পেয়ার পাতায় কমাবে চুল পড়া – চুল পড়া কি বেড়ে গেছে? আধুনিক সব ট্রিটমেন্টের পরেও চুল পাতলা হয়ে যাচ্ছে? নানা কারণে চুল পড়া বেড়ে যেতে পারে। যেমন ধরুন- পরিবেশ দূষণ, বয়স, স্ট্রেস, স্মোকিং, পুষ্টির অভাব, হরমোনাল

ইমব্যালেন্স, জেনেটিক কারণ, স্কাল্প ইনফেকশন, হেয়ার প্রোডাক্টের মাত্রাতিরিক্ত ব্যবহার, বেশ কিছু ওষুধের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া, থাইরয়েড, অটোইমিউন ডিজিজ, পলিসিস্টিক ওভারিয়ান সিনড্রোম, অ্যানিমিয়া প্রভৃতি। আমাদের মাথায় স্বাভাবিক অবস্থায় প্রায় ১০০,০০০ চুল থাকে। যার

মধ্যে প্রতিদিন ৫০-১০০ টা চুল পড়ে যাওয়া একেবারে স্বাভাবিক ঘটনা। কিন্তু এর থেকে বেশি মাত্রায় পড়তে শুরু করলেই চিন্তার বিষয়। এক্ষেত্রে যত শীঘ্র সম্ভব প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে হবে, না হলে কিন্তু মাথা ফাঁকা হয়ে যেতে সময়ও লাগবে না। আসুন জেনে নেওয়া যাক

এমন ৭টি ভেষজের কথা যেগুলো চুলপড়া কমাতে বেশ কার্যকর। চুল পড়ে যাচ্ছে এই নিয়ে দুশ্চিন্তায় আরও বেশি চুল পড়ে। এ সমস্যা রোধে নানা প্রাকৃতিক উপায় ব্যবহারের কথা শোনা যায়। তবে পেয়ারা পাতা ব্যবহারের বিষয়টি খুব একটি প্রচলিত নয়। কিন্তু এটি বেশ কার্যকরী।

কয়েক শো বছর ধরে উত্তর আমেরিকার দেশ মেক্সিকোতে চুল ওঠার পাশাপাশি বিভিন্ন সমস্যা দূর করতে পেয়ারা পাতা ব্যবহার করা হয়।পেয়ারা ফলের মতো এর পাতাতেও রয়েছে প্রচুর ভিটামিন বি ও সি। এই ভিটামিন দুটি কোলাজেনের সক্রিয়তা বাড়ায়। চুল গজানোর জন্য কোলাজেন

সক্রিয় হওয়া খুব জরুরি। এছাড়া পেয়ারা পাতায় প্রচুর অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট এবং জীবাণুনাশক রাসায়নিক রয়েছে, যা মাথার স্ক্যাল্প সুস্থ রাখে। এতে থাকে লাইকোপেন,যা সূর্যের অতি বেগুনি রশ্মি থেকে চুলকে রক্ষা করে।এক গ্লাস জলে বেশ কয়েকটা পেয়ারা পাতা দিয়ে অন্তত ২০ মিনিট

ফোটান। নামিয়ে ঠাণ্ডা করুন। শ্যাম্পু করে চুল শুকিয়ে তাতে এই জল লাগিয়ে নিন। এছাড়াও আপনি মেথি ব্যবহার করে চুল পড়া রোধ করতে পারেন। চুল পড়া আটকাতে মেথি দারুন কাজে আসে। আসলে এতে উপস্থিত বেশ কিছু উপাদান চুলের বৃদ্ধিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে

থাকে। যখনই দেখবেন চুল পড়ার হার খুব বেড়ে গেছে, তখনই অল্প করে মেথি বীজ নিয়ে এক গ্লাস জলে এক রাত ভিজিয়ে রাখবেন। পরদিন বীজগুলি বেটে নিয়ে একটা পেস্ট বানাবেন। সেই পেস্টটা ভাল করে মাথায় লাগিয়ে ৪০ মিনিট রেখে দিয়ে ধুয়ে নেবেন। টানা একমাস, প্রতিদিন এই মিশ্রনটি মাথায় লাগালে চুল পড়া তো কমবেই, সেই সঙ্গে মাথা ভর্তি চুলের স্বপ্নও পূরণ হবে।

Check Also

খুশকির সমস্যা থেকে রেহাই পেতে ৭ টি অব্যর্থ ঘরোয়া উপায়

খুশকির সমস্যা থেকে রেহাই পেতে ৭ টি অব্যর্থ ঘরোয়া উপায় – শীতকালের শুরু থেকেই মাথায় ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x