Friday , September 24 2021
Home / সংবাদ / ঘণ্টায় 16 মিলিয়ন কিলোমিটার বেগে পৃথিবীর দিকে ধেয়ে আসছে সৌর ঝড়! সতর্কবার্তা বিজ্ঞানীদের

ঘণ্টায় 16 মিলিয়ন কিলোমিটার বেগে পৃথিবীর দিকে ধেয়ে আসছে সৌর ঝড়! সতর্কবার্তা বিজ্ঞানীদের

এক লক্ষ কিলোমিটার গতিতে আসা একটি সৌর ঝড় রবিবার বা সোমবার যেকোনো সময় পৃথিবীতে আঘাত করতে পারে। সৌর ঝড় এর কারণে পৃথিবীর বাইরের বায়ুমণ্ডল উত্তপ্ত হতে পারে যা উপগ্রহের উপর সরাসরি প্রভাব ফেলতে পারে। এটি জিপিএস নেভিগেশন মোবাইল

ফোন সিগন্যাল এবং স্যাটেলাইট ভিত্তিতে হস্তক্ষেপ করতে পারে। সূর্যের পৃষ্ঠতলে জন্ম নেওয়া একটি শক্তিশালী সৌর ঝড় প্রতি ঘন্টায় 1609344 কিলোমিটার গতিতে পৃথিবীর দিকে এগিয়ে চলেছে। বিজ্ঞানীরা সতর্ক করেছেন যে এই ঝড়ের কারণে উপগ্রহ সংকেত বাধাগ্রস্ত হতে পারে। এর

প্রভাবে বিমান বেতারের সঙ্গে যোগাযোগ এবং আবহাওয়ার ক্ষেত্রেও দেখা যেতে পারে। Space weather.com এর ওয়েবসাইট অনুসারে একটি সৌর ঝড় যা সূর্যের বায়ুমণ্ডল থেকে উদ্ভূত হয়েছিল তা পৃথিবীর চুম্বকীয় ক্ষেত্র দ্বারা প্রভাবিত স্থানের অঞ্চলে উল্লেখযোগ্য প্রভাব ফেলতে

পারে। উত্তরাঞ্চলে, দক্ষিন অক্ষাংশে বসবাসকারীরা রাতে সুন্দর ওরোরা দেখতে আশা করতে পারে। আকাশের রাতে দেখা উজ্জ্বল আলোকে ওরোরা বলে। মার্কিন মহাকাশ সংস্থা নাসা অনুমান করছে যে এই ঝড়টি প্রতি ঘন্টায় কয়েক লক্ষ কিলোমিটার গতিবেগে চলেছে এবং তারা

অনুমান করছেন যে এর গতি আরও বেশি হতে পারে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন যে মহাশূন্য টি আবার মহাকাশ থেকে ফিরে এলে পৃথিবীর প্রায় প্রতিটি শহরে বিদ্যুতের বাইরে চলে যেতে পারে। পাওয়ার লাইনে বর্তমান উচ্চতার হতে পারে যা ট্রান্সফর্মার গুলিও নষ্ট করতে পারে।

তবে এটি খুব কমই ঘটে কারণ পৃথিবীর চুম্বকীয় ক্ষেত্র টি এর বিরুদ্ধে প্রতিরক্ষামূলক হিসেবে কাজ করে। 1989 সালের সৌরঝড়ের কারণে কানাডার কিউবিক সিটিতে 12 ঘণ্টা বিদ্যুৎ বিভ্রাট হয়েছিল এবং লক্ষ্য লক্ষ্য মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছিল। একইভাবে 1859 সালের সবচেয়ে

শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় যা ইউরোপ, আমেরিকার টেলিগ্রাফ নেটওয়ার্ক ধ্বং-স করেছিল। এই সময় কিছু অপারেটর বলেছিলে যে তারা বৈদ্যুতিক শক ভোগ করেছে আবার কেউ কেউ বলেছেন তারা ব্যাটারি ছাড়াই তাদের সরঞ্জাম ব্যবহার করছে।।

Check Also

ভয়ংকর প্রজাতির পিঁপড়ার সন্ধান মিললো দেশে

ভয়ংকর প্রজাতির পিঁপড়ার সন্ধান মিললো দেশে

দেশে ‘ক্লোনাল রাইডার অ্যান্ট’ নামের ভয়ংকর প্রজাতির পিঁপড়ার সন্ধান পেয়েছেন হার্ভার্ড গবেষক ওয়ারিং ট্রাইবল। পিঁপড়াগুলোর ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *