Tuesday , June 22 2021
Home / স্বাস্থ্য / উচ্চ রক্তচাপ হলে ভুলেও এসব খাবার খাবেন না

উচ্চ রক্তচাপ হলে ভুলেও এসব খাবার খাবেন না

উচ্চ রক্তচাপ হলে ভুলেও এসব খাবার খাবেন না – রক্তচাপ রোগটি এখন ঘরে ঘরে। বিশেষ করে উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা ব্যাপক হরে ছড়িয়ে পড়েছে। উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা নির্দিষ্ট কোনো বয়স সীমা নেই। উচ্চ রক্তচাপের প্রবণতা দেখা দিতে পারে জীবনের যেকোনো সময়ে যেকোন বয়সী মানুষের মধ্যেই। সাধারণত অতিরিক্ত ওজন, অনিয়ন্ত্রিত জীবনযাপন,

সঠিক খাদ্যাভ্যাসের অভাবে অনেকেই খুব কম বয়সে উচ্চ রক্তচাপজনিত রোগে আক্রান্ত হন। উচ্চ রক্তচাপ হলে খাবারের নিয়ন্ত্রণ খুবই জরুরি। কেননা উচ্চ রক্তচাপ থেকেই ডায়াবেটিস, কিডনি রোগ এবং হার্ট অ্যাটাকের মত জটিলসব রোগ। এক নজরে দেখে নিন যেসব খাবার উচ্চ রক্তচাপ হলে ভুলেও খাবেন না:

মাত্রাতিরিক্ত সোডিয়াম জমা হলে উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা প্রবল হয়। তাই যাদের উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা আছে তাদের জন্য লবণ খুবই ক্ষতিকর। তাই খুবই সীমিত পরিমাণ লবণ দিয়ে খাবার তৈরি করে খাবেন। বাড়তি লবণ নিয়ে খাবার খাওয়ার অভ্যাস থাকলে তা থেকে একশত হাত দূরে থাকুন।

কফি: উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা হলে আপনাকে কফি থেকেও দূরে থাকতে হবে। যাদের উচ্চরক্তচাপের সমস্যা আছে তাদের জন্য কফি খাওয়া বেশ ঝুঁকিপূর্ণ, কারণ ক্যাফেইন রক্তনালীকে সরু করে দেয়, ফলে হঠাৎ করে বেড়ে যাওয়া রক্তচাপের ফলে হার্ট অ্যাটাক কিংবা স্ট্রোকের মত জটিল সমস্যা দেখা দেয়।

লাল মাংস: উচ্চ রক্তচাপের সমস্যায় রেড মিট বা লাল মাংস অর্থাৎ গরুর মাংস, খাসির মাংস এবং মহিষের মাংস একেবারেই বর্জন করা একান্ত জরুরি। কারণ এই সব লাল মাংসে খারাপ কোলেস্টেরলের পরিমাণ বেশি থাকে যা হৃদরোগ এবং স্ট্রোকের ঝুঁকি বহুগুন বাড়িয়ে দেয়। ফলে আপনার স্বাস্থ্য ঝুঁকি বেশি থেকে যায়।

ফাস্টফুড: ফাস্টফুড অথাৎ প্যাকেটজাত ও প্রসেসড ফুডগুলোর মধ্যেই সব থেকে বেশি উচ্চ রক্তচাপ সৃষ্টিকারক উপাদান থাকে। এই ফাস্ট ফুড এবং বেকারি খাবারে প্রচুর পরিমাণে সোডিয়াম, প্রিজারবেটিভ, বিষাক্ত রঙ, এবং ক্ষতিকারক চর্বি ডালডা ব্যাবহার করা হয়। এই উপাদানগুলি আপনার রক্তচাপকে আও বাড়িয়ে দিতে থাকে। তাই পরিহার করুন।

ডিমের কুসুম ও মুরগির চামড়া: মুরগির চামড়া এবং ডিমের কুসুম খেলে রক্তচাপ বৃদ্ধি পায়। সেই সাথে বেড়ে যায় হার্ট অ্যাটাকের ঝুঁকিও। এছাড়াও মুরগির ত্বকে উচ্চ মাত্রার চর্বি থাকে যা মানুষের শরীরের কোলেস্টেরলের মাত্রা বৃদ্ধি করে এবং স্ট্রোকের ঝুঁকি বেড়ে যায় কয়েকগুণ।

মিষ্টি জাতীয় খাবার: অতিরিক্ত চিনি বা মিষ্টিজাতীয় খাবার আমাদের শরীরে মেদ জমতে সাহায্য করে এবং এর ফলে শরীরের ওজন বৃদ্ধি পেয়ে মোটা হয়ে যেতে পারেন। অনেকে আছেন যারা অতিরিক্ত ওজনের কারণে উচ্চ রক্তচাপের মতো রোগে আক্রান্ত হয়েছেন। তাছাড়া অতিরিক্ত চিনিযুক্ত খাবার খেলে রক্তচাপ বেড়ে যায়। এবং অতিদ্রুত চেহারাতে বয়সের ছাপ পড়ে যায়। তাই চিনি বা মিষ্টি জাতীয় খাবার হতে সবসময় দূরে থাকে।

About Moni Sen

Check Also

প্রস্রাবের সময় পেটে টান, জ্বালা ও অন্য সমস্যা? মেনে চলুন এই ঘরোয়া টিপস

প্রস্রাবের সময় পেটে টান, জ্বালা ও অন্য সমস্যা? মেনে চলুন এই ঘরোয়া টিপস

প্রস্রাবের সময় পেটে টান, জ্বালা ও অন্য সমস্যা? মেনে চলুন এই ঘরোয়া টিপস- বর্তমান পরিস্থিতিতে ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *